বাড়ি রাজ্য দক্ষিণ ২৪পরগনা সুন্দরবনে বেড়াতে এসে বিপত্তি! বিদ্যাধরী নদীতে তলিয়ে গেলেন পর্যটক

সুন্দরবনে বেড়াতে এসে বিপত্তি! বিদ্যাধরী নদীতে তলিয়ে গেলেন পর্যটক

138
0

সুন্দরবন, ২৬ নভেম্বর : নদিয়া জেলার চাকদহ থেকে সুন্দরবনে এসেছিলেন বেড়াতে। কিন্তু, এমন হবে তা কেউ ভাবতেও পারেননি। বিদ্যাধরী নদীর জলে পড়ে গিয়ে তলিয়ে গেলেন একজন পর্যটক। সোমবার সন্ধ্যায় ঘটনাটি ঘটেছিল সুন্দরবনের সাতজেলিয়ার কাছে, মঙ্গলবার দুপুর পর্যন্ত ওই পর্যটকের কোনও খোঁজ পাওয়া যায়নি। নিখোঁজ পর্যটকের নাম সৈকত রায় (৩৮)। ওই পর্যটকের খোঁজে নদীবক্ষে তল্লাশি চালাচ্ছে সুন্দরবন কোস্টাল থানার পুলিশ। গত ২৪ নভেম্বর, রবিবার নদিয়া জেলার চাকদহ থেকে ২৩ সদস্যের একটি পর্যটক দল সুন্দরবনের কৈখালীতে বেড়াতে আসে। সেখান থেকে সোমবার সকালে একটি ভুটভুটি ভাড়া করে তারা সুন্দরবনের বিভিন্ন এলাকা ঘুরতে থাকলেন। মূলত, সুন্দরবনের সজনেখালি, সুধন্যখালি, বুড়ির ডাবরি এলাকা পরিদর্শনে যাওয়ার কথা ছিল তাদের। সোমবার সন্ধ্যা নাগাদ যখন তাদের ভুটভুটিটি সজনেখালি লাগোয়া সাতজেলিয়ার কাছে ছিল, ঠিক তখন অসাবধানতাবশত সেখান থেকে নদীর জলে পড়ে যান সৈকত। সঙ্গীরা কিছু বুঝে ওঠার আগেই বিদ্যাধরী নদীতে তলিয়ে যান তিনি। সঙ্গীরা তাকে খোঁজার চেষ্টা করলেও ব্যর্থ হন। এরপর তারা কুলতলি থানায় এ বিষয়ে জানান। খবর পেয়ে নড়েচড়ে বসে পুলিশ। সঙ্গে সঙ্গেই কুলতলি থানার তরফ থেকে সুন্দরবন কোস্টাল থানার সঙ্গে যোগাযোগ করা হয়। সোমবার রাতেই পর্যটক নিখোঁজের খবর পেয়ে সুন্দরবন কোস্টাল থানার পুলিশ সাতজেলিয়ার কাছে নদীতে খোঁজাখুঁজি শুরু করে, কিন্তু মঙ্গলবার দুপুর পর্যন্ত কোনও খোঁজ মেলেনি ওই পর্যটকের। ছেলে নিখোঁজ হয়ে যাওয়ায় শোকস্তব্ধ সৈকতের বাবা-মা ও পরিবারের সদস্যরা। 

Loading...