বাড়ি কলকাতা বাড়িতে বেআইনি কাঠ, সোনার মেয়ে স্বপ্নাকে বনদফতরের নোটিস

বাড়িতে বেআইনি কাঠ, সোনার মেয়ে স্বপ্নাকে বনদফতরের নোটিস

35
0

কলকাতা, ১৩ জুলাই  : বাড়িতে বেআইনি কাঠ মজুতের অভিযোগে সোনা জয়ী অ্যাথলেটিক স্বপ্না বর্মনকে নোটিস ধরালো বনদফতর। গোপন খবরের ভিত্তিতে সোমবার দুপুরে জলপাইগুড়ি জেলার সদর মহকুমার পাতকাটা গ্রাম পঞ্চায়েতের ঢিং পাড়ায় স্বপ্না বর্মনের নির্মীয়মান বাড়িতে অভিযান চালান বনদফতরের আধিকারিকেরা। 
অভিযানে গিয়ে সরকারি কর্মীরা স্বপ্না বর্মনের কাছে বাড়িতে রাখা কাঠের কাগজ দেখতে চান। পরিবারের পক্ষ থেকে তৎক্ষনাৎ সেই কাগজ দেখাতে না পারায় বনদফতর তাদের ৩০ দিনের মধ্যে মজুত কাঠের কাগজ দেখানোর নোটিশ দেয়। এদিন এই ঘটনা চলাকালীন স্বপ্নার বাড়িতে উপস্থিত ছিলেন স্থানীয়  প্রধান হেমব্রম। তিনি স্থানীয় গ্রামপঞ্চায়েতের প্রধান। সাংবাদিকদের জানান, ‘বাড়িতে জ্বালানীর জন্য তিস্তায় ভেসে আসা কিছু কাঠ কিনেছিল স্বপ্না বর্মনের পরিবার। সেই খবর গোপন সূত্রে পেয়ে তল্লাশিতে আসে বনদফতর।’ 
এদিনের ঘটনায় বনদফতরের টাস্ক ফোর্সের প্রধান সঞ্জয় দত্ত জানান, ‘সোর্স মারফৎ আমরা খবর পাই যে স্বপ্না বর্মনের বাড়িতে বেআইনি ভাবে কাঠ মজুত করা হয়েছে। এরপর আমরা সঙ্গে সঙ্গে অভিযানে আসি। এসে দেখি কিছু কাঠ রয়েছে। সেই কাঠের কাগজ দেখতে চাই। পরিবার থেকে আমাদের বলা হয় এই কাঠগুলি তিস্তার বন্যায় ভেসে আসা কাঠ। এই মুহুর্তে তারা কাঠের কাগজ খুঁজে পাচ্ছে না। তাই আমরা তাদের বৈধ কাগজ দেখানোর জন্য ৩০ দিনের নোটিশ দিলাম। এগুলি শাল না সেগুন কি কাঠ তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। কতটা পরিমান কাঠ তার মাপঝোকও চলছে।’ যদিও এ ব্যাপারে স্বপ্না বর্মন বা তার পরিবারের পক্ষ থেকে কোনও প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি।

Loading...