বাড়ি প্রথম পৃষ্ঠা ফের বিজেপি-র বিরুদ্ধে ধর্মীয় মেরুকরণের রাজনীতি করার অভিযোগ মমতার

ফের বিজেপি-র বিরুদ্ধে ধর্মীয় মেরুকরণের রাজনীতি করার অভিযোগ মমতার

40
0

কলকাতা, ৯ ফেব্রুয়ারি  : বারবার গেরুয়া শিবিরের বিরুদ্ধে ধর্মীয় মেরুকরণের রাজনীতি করার অভিযোগ উঠেছে। ভোটের আগে কালনার সভা থেকে একই অভিযোগে বিজেপির  বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগড়ে দিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। 
তাঁর দাবি, “হিন্দু ধর্ম নিয়ে বড় বড় কথা বলছে। কেন, আমরা হিন্দু নই? আমরা কি বলি, মুসলিমদের আমরা ঘৃণা করি?”  যদিও এর পালটা বিজেপির তরফে এখনও মেলেনি কোনও প্রতিক্রিয়া। এদিন তাৎপর্যপূর্ণভাবে কালনাকে ‘মন্দিরের শহর’ হিসেবে তুলে ধরার চেষ্টা করলেন মুখ্যমন্ত্রী। বলে দেন, “কালনার থেকে বেশি মন্দির কোথাও নেই। নবদ্বীপকে হেরিটেজ শহর হিসেবে ঘোষণা করা হয়েছে। আগামী দিনে কালনার কথাও ভাবা হবে।”দিন কয়েক আগেই নবদ্বীপে সভা করে এসেছেন জে পি নাড্ডা। কালনা-নবদ্বীপের সম্পর্ক তুলে ধরলেন মমতা বক্তব্যের শুরুতেই। বলেন ১১০০ কোটি টাকার ব্রিজ তৈরি করেছি। কালনাকে শান্তিপুরের সঙ্গে যোগ করার জন্য।  ধর্মের নামে রাজনীতি করার অভিযোগে আরও একবার বিজেপিকে তোপ দেগেছেন মমতা। তাঁর কথায়, “এখানে এসে চৈতন্য দেবের নামে ভুলভাল বলে গিয়েছে। বিবেকানন্দকে ঠাকুর বানিয়ে দিয়েছে। বিজেপি কোনও ধর্ম জানে না। মুখে বলে হিন্দু ধর্ম জানে। কিন্তু কিছু জানে না। জানে ওঁরা হিন্দু ধর্মের মধ্যে কটা ধর্ম আছে? বিজেপি কোনও ধর্মকে সম্মান করে না।”

Loading...