বাড়ি প্রথম পৃষ্ঠা মোদী সরকার সন্ত্রাস চালাচ্ছে ,তাকে কেন্দ্র থেকে সরাতে হবে :মুখ্যমন্ত্রী মমতা ...

মোদী সরকার সন্ত্রাস চালাচ্ছে ,তাকে কেন্দ্র থেকে সরাতে হবে :মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

125
0


শিলিগুড়ি , ১৩ এপ্রিল ।দার্জিলিঙ লোকসভা কেন্দ্রের  তৃণমূল কংগ্রেস প্রার্থী অমর সিং রাইয়ের সমর্থনে শনিবার শিলিগুড়ির বাঘাযতীন পার্কের জনসভায় মুখ্যমন্ত্রী মমতা  বন্দ্যোপাধ্যায় নির্বাচন এর প্রচারে এসে বললেন যে কোনো সাম্প্রদায়িক শক্তি কে আমরা আমাদের দেশের ঐক্য কে নষ্টকরতে দেবোনা।তার  সাথে আজ মঞ্চে উপস্থিত ছিলেন দার্জিলিঙ লোকসভা কেন্দ্রের  তৃণমূল কংগ্রেস প্রার্থী অমর সিং রাই , জলপাইগুড়ি লোকসভা কেন্দ্রের তৃণমূল কংগ্রেস  প্রার্থী বিজয় চন্দ্র বর্মন , রাজ্যের  পর্যটন  মন্ত্রী গৌতম দেব ,মন্ত্রী এরূপ বিশ্বাস , তৃণমূল নেতা তথা বিশিষ্ট সংগীত শিল্পী ইন্দ্রনীল  সেন  ও দার্জিলিঙ জেলার তৃণমূল কংগ্রেসের সমস্ত  নেতৃত্ব  । শিলিগুড়ির   জনসভায়   উপস্থিত হয়ে তিনি  শুরুতেই   করা  ভাষায় আক্রমণ করেন বিজেপি তথা  প্রধানমন্ত্রী  নরেন্দ্র মোদী কে ।  তিনি বলেন মোদী জি এন আর সি র মতো একটা বিষয় লাগা করে বিজেপি সরকার দেশের মানুষ কে বাসস্থান চ্যুত করতে চাইছেন ।তিনি বলেন যে প্রাণ দিয়ে দেব কিন্তু দেশের ঐক্য র জন্য  লড়াই করবো ।বিভিন্ন ভাষা ভষ্যির ও জাতির  মানুষ কে তিনি উল্লেখ করে আলাদা   আলাদা  করে তাদের  নিজস্ব উৎসবের জন্য শুভেচ্ছা জানান ।তিনি বলেন তৃণমূল কংগ্রেস একটি সর্ব ভারতীয় পার্টি ।যদিও  এই পার্টির যাত্রা বাংলা থেকে শুরু হয়েছিল ।তিনি বলেন যেহেতু  তৃণমূল কংগ্রেস একটি সর্ব ভারতীয় পার্টি তাই তিনি আনয়নে রাজ্য যেমন অসম , বিহার , ঝাড়খন্ড থেকেও লড়াই করছেন ।তার  বিশ্বাস যে তৃণমূল কংগ্রেস এইসব রাজ্য থেকে ও আসন ছিনিয়ে আন্তে পারবে ।প্রধানমন্ত্রী  নরেন্দ্র মোদী কে ” হরিদাস ” আখ্যা দিয়ে তিনি বলেন যে প্রধান মন্ত্রী হিন্দু তথা বাঙালিদের  বা বিভিন্ন  হিন্দু জাতির লোকাচার সম্পর্কে কোনো জ্ঞান রাখেন না । কোনো পুজোর মন্ত্র জানেন না ।তার সাথে  তিনি বলেন যে মুসলমানদের ও নামাজ  পাঠের বিষয় বস্তু জানেন না ।তাই কালী পুজো  , দূর্গা পুজো , লক্ষ্মী  পুজো , সরস্বতী পুজো , গনেশ পুজো , বিশ্বকর্মা পুজো ,ছট থেকে শুরু করে প্রত্যেকটি পুজোর তুলনা দিয়ে বলেন এটাই দেশের সংস্কৃতি , এটাই বাংলার সংস্কৃতি ।তাই এই সংস্কৃতি কে রক্ষা করার জন্য সবাই একসাথে থাকার জন্য দিল্লি   তে তৃণমূল কংগ্রেসের সরকার প্রতিষ্ঠা করতে হবে ।তিনি জনগনের উদ্যেশ্যে বলেন যে তিনি রাজ্যের উন্নয়নের জন্য অনেক কিছু করেছেন ।যখন তিনি রেলমন্ত্রী ছিলেন তখন তিনি রেলওয়ে উন্নয়ন বোর্ড বানিয়ে  দিয়েছিলেন  ।এছাড়া ব্রিজ রাস্তা ঘাট সব দিক দিয়ে উন্নয়ন করেছেন ।তার কন্যাশ্রী প্রকল্প জাতিপুঞ্জের কাছে প্রসংশিত হয়েছে  ।তিনি রূপশ্রী প্রকল্প , স্বাস্থা সাথী , কৃষক বন্ধু ও সবুজ সাথী প্রকল্পের দৃষ্টান্ত দিয়ে মানুষের কাছে উন্নয়নের বার্তা তা পৌঁছে দিলেন ।তিনি বললেন যে তৃণমূল লড়াই করতে জানে ।তাই তৃণমূলের  হাত কে শক্ত করার জন্য সবাই কে তৃণমূল কংগ্রেস কে ভোট  দিয়ে জেতাতে হবে।তিনি বিশ্বাস করেন  যে চোপড়া  বাসি , শিলিগুড়ি ,নক্সালবাড়ি , মাটিগাড়া , ফাঁসিদেওয়া ও পাহাড়ের মানুষ তার দলকে তার প্রতিনিধি কে ভোট দেবেন ।তিনি দার্জিলিঙ লোকসভা কেন্দ্রের  তৃণমূল কংগ্রেস প্রার্থী অমর সিং রাই কে ভূমিপুত্র  হিসেবে আখ্যা দিয়ে বলেন যে তাকে ভোট দিয়ে জয়যুক্ত করে দিল্লি তে পাঠাতে ।তিনি জনগণ কে বলেন ” ভিক্ষা নয় চাইছি ঋণ – তৃণমূল কে ভোট দিন  ।তিনি বুঝিয়ে দেন যে উত্তর প্রদেশ মায়াবতী আর অখিলেশ যাদব জিতুক ,বিহারে   লালু প্রাসাদ যাদব জিতুক , তামিলনাড়ু তে চান্দ্রা বাবু নাইডু জিতুক ।এছাড়া উত্তর পূর্ব ভারতে তাদের সমর্থনে থাকা দল গুলো জিতুক ।তিনি নতুন প্রজন্মের অর্থাৎ   নতুন ভোটারদের উদ্যেশ্যে বলেন তাদের ভোট এইবারের নির্বাচনে সব চেয়ে গুরুত্বপূর্ণ   ভোট ।তাই তাদের কে চিন্তা ভাবনা করে ভোট দিতে হবে।তাই 18 তারিখ জোড়া ফুলে ভোট দিয়ে বাংলা কে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার দায়িত্ব তাদের ওপরেই বর্তায় । তিনি আরো বলেন যে বাংলার ভাই বোনেরা , মায়েরা জন্ম নিয়েছে বাংলায় ।এবং আজকের শিশুরা যারা ভবিষ্যতের নাগরিক তারা যেন বলতে  পারে তারা ভারতবর্ষের নাগরিক ।সেই প্রতিশ্রুতি দিচ্ছে তৃণমূল কংগ্রেস ।প্রত্যেকে নিরাপত্তায় ও নিশ্চিন্তে যাতে জীবন কাটাতে পারে ।তিনি মোদী সরকার কে সন্ত্রাসবাদী আখ্যা দিয়ে বলেন যবে থেকে এরা সরকারে এসেছে সমানে সন্ত্রাস চালাচ্ছে দেশে ।তিনি বলেন মুদ্রাবন্দির নাম করে মোদী সরকার আপনার জমানো লক্ষীর ভান্ডারের পয়সা টুকুও নিয়ে নিয়েছে ।ব্যবসায়ী থেকে শুরু করে কৃষক কে ,শিল্পপতি , মা ভাই বোন সবাই কে লুটে নিয়েছে ।এই সরকার  মানুষের প্রতি অত্যাচার করেছে তাই এই সরকার কে কেন্দ্র  থেকে সরিয়ে একটা অসাম্প্রদায়িক সরকার গঠনের লক্ষে এইবারের নির্বাচনে সবাই কে এক হয়ে দাঁড়াতে হবে ।

Loading...