বাড়ি বিনোদন জীবনের বাস্তব ছায়া চলচ্চিত্রোৎসবে সুদেষ্ণা রায়ের ছবিতে

জীবনের বাস্তব ছায়া চলচ্চিত্রোৎসবে সুদেষ্ণা রায়ের ছবিতে

49
0

কলকাতা, ১ নভেম্বর : এশিয়ান সিলেক্টে নেটপ্যাক অ্যাওয়ার্ডের দৌড়ে কিছু ছবির সঙ্গে লড়াই করছে অভিজিৎ গুহ এবং সুদেষ্ণা রায়ের ছবি ‘শ্রাবণের ধারা’। তার সঙ্গে রয়েছে চিত্রাঙ্গদা শতরূপা অভিনীত আদিত্য কৃপালিনী পরিচালিত হিন্দি ছবি ‘দেবী অউর হিরো’ও। 
‘হিন্দুস্থান সমাচার’-কে সুদেষ্ণা জানান, “শ্রাবণের ধারা এমন এক বিষয় নিয়ে ছবি, যা এখন ঘরে  ঘরে  মানুষের জীবনে প্রতিফলিত হচ্ছে। অমিতাভ সরকার আলঝাইমার রোগে আক্রান্ত। তিনি আঁকড়ে ধরেছেন তাঁর অতীতকে, আর নীলাভ যিনি অমিতাভর  ডাক্তার, তিনি ভুলতে চান তাঁর অতি  সাধারণ নিম্ন মধ্যবিত্ত অতীতকে। এঁদের দুজনের মধ্যে রয়েছেন শুভা, অমিতাভর অসম বয়সী স্ত্রী। শ্রাবণের ধারা ভালোবাসা ও সম্পর্কের  গল্প। স্বামী স্ত্রী,  ডাক্তার  রোগী, বাবা ছেলে, ভাইবোন, দুই  বন্ধুর  সম্পর্কের বিভিন্ন দিক উন্মোচিত হয়েছে এই ছবির পদে  পদে। সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়, পরমব্রত  ও গার্গী  রায়চৌধুরি অভিনীত ছবির মধ্যে  ফুটে ওঠে  আধুনিক জীবনের নানা দিক।”সুদেষ্ণার প্রথম ছবি ‘শুধু তুমি’। তাঁর কথায়, “আমাদের ছবি তিন ইয়ারি কথা বহু ফেস্টিভ্যাল ঘুরেছে। ‘যদি লাভ  দিলে না প্রাণে’ ইন্ডিয়ান পানোরামায় ছিল গোয়ার ইফ্ফি-তে। এ ছাড়া হাওয়াই ফেস্টিভ্যাল, পুনে ও হায়দরাবাদেও সমাদৃত হয়েছে। ‘শ্রাবনের  ধারা’  ইতিমধ্যেই আইএফএফএসএ টরন্টোতে প্রশংসিত। আমাদের ছবি ‘বেঁচে থাকার গান’ প্রথম বাংলা ফিল্ম  যা কলকাতা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে  উদ্বোধনী  ছবি  হিসেবে নির্বাচিত হয়। আমাদের ছবি ‘তিন ইয়ারি কথা‘, ‘ক্রস কানেকশন’, ‘প্রেমবাই চান্স’, ‘বাপি বাড়ি যা’, ‘বিটনুন’ খুবই জনপ্রিয়তা লাভ করেছে। আমাদের ছবি দর্শকের প্রশংসাও অর্জন  করেছে। ১৬ টি ফিচার ফিল্ম বানিয়েছি। এ ছাড়া ২৫টির মতো টেলিভিশনের জন্য  ছবি, যা অত্যন্ত  জনপ্রিয় টিআরপি-র নিরিখে।”

Loading...